শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ০১:৫৭ পূর্বাহ্ন

নারী ও যৌতুক লোভী সাবেক স্বামী ইসলামের নির্যাতনের হাত থেকে বাঁচতে সংবাদ সম্মেলন

রিপোটারের নাম / ১৫২ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৬ মে, ২০২২

স্টাফ রিপোর্টার: নারী ও যৌতুক লোভী তালাক দেওয়া সাবেক স্বামী মো. ইসলাম গাজীর নির্যাতনের হাত থেকে বাঁচতে লক্ষ্মীপুরে সংবাদ সম্মেলন করেছে এক অসহায় নারী। তালাক দেওয়া স্বামীর নির্যাতনের হাত থেকে নিজেকে ও নিজের সন্তানকে বাঁচাতে তার এই সংবাদ সম্মেলন। বুধবার দুপুরে স্থানীয় একটি পত্রিকার কার্যালয়ে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন ভূক্তভোগী নারী শাহানাজ আক্তার।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে শাহানাজ আক্তার বলেন, গত ৬ বছর আগে গোপালগঞ্জ জেলার বাসিন্দা মো. ইসলাম গাজীর সাথে আমার বিয়ে হয়। দাম্পত্য জীবনে আমাদের একটি কন্যা সন্তান জন্মগ্রহণ করে (ছাবিহা আক্তার বয়স ২ বছর ৩ মাস)। বিয়ের পর থেকে আমার সাবেক স্বামী বিভিন্ন সময় যৌতুক দাবি করে আমার কাছে। আমার দিনমজুর পিতার পক্ষে যৌতুক দেওয়া সম্ভব না হওয়ায় যৌতুকের জন্য নেশাগ্রস্থ হয়ে বিভিন্ন সময় আমার স্বামী অমানুষিক নির্যাতন চালাতো আমার ওপর।
এরই মধ্যে আমি জানতে পারি আমার সাবেক স্বামীর আরো একজন স্ত্রী রয়েছে মিলা খাতুন নামে। তার ওই স্ত্রীর ঘরে তাদের একটি মেয়ে ও একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। এছাড়াও একাধিক নারীর সাথে তাহার সম্পর্ক রয়েছে।
২০১৯ সালে হাসপাতালে আমার কন্যা সন্তান জন্মগ্রহণ করে। সন্তান জন্মগ্রহণের ৬দিন পর আমার সাবেক স্বামীসহ তার বড়ির লোকজন যৌতুকের জন্য সন্তানসহ আমাকে আমার বাবার বাড়ি পাঠিয়ে দেয়। আমার দিনমজুর বাবার পক্ষে তাদের দাবিকৃত যৌতুকের টাকা না দিতে পারায় আমার সাবেক স্বামী অদ্যবধি পর্যন্ত আমার ও আমার সন্তানের কোন খোঁজ খবর নেয় নাই। পরবর্তীতে ২০২২ সালের জানুয়ারি মাসে আমি উপায় অন্ত না পেয়ে আমার সাবেক স্বামীকে তালাক প্রদান করি এবং মোহরানা, ভরনপোষন ও খোরপোষের আইনগত দাবি করি।
তালাক নামা পাওয়ার পর থেকে আমার সাবেক স্বামী মো. ইসলাম গাজী বিভিন্ন ভাবে আমাকে ও আমার বাবা-মাসহ পরিবারের সদস্যদের হুমকি দমকি দিয়ে আসছে। এছাড়া আমি ও আমার সন্তানের ন্যার্য পাওনা পাওয়ার জন্য পারিবারিক আদালতে মো. ইসমাইল গাজীর বিরুদ্ধে পারিবারিক মামলা নং-৭৮৬/২২ দায়ের করি।
এতে ক্ষিপ্ত হয়ে গত কয়েক দিন আগে তার লোকজন (সন্ত্রাসী) নিয়ে আমাদের বাড়িতে হামলা চালায়। তারা আমাকে প্রাণে হত্যা ও আমার মেয়েকে আমার কাছ থেকে ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। পরবর্তীতে আমাদের চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে তারা পালিয়ে যায়। বর্তমানে সাবেক স্বামী মো. ইসলাম গাজীর ভয়ে আমি আমার কন্যা সন্তান নিয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছি। আমি তার ভয়ে আমার বাবার বাড়িতেও থাকতে পারছিনা। সে যে কোন সময় আমার ও আমার সন্তানের বড় ধরণের ক্ষতি করতে পারে। তার ভয়ে আমার পরিবারের অন্য সদস্যরাও আতঙ্কে রয়েছে।
তিনি আরো বলেন, সাবেক স্বামী মো. ইসলাম গাজী মুলত একজন নেশাগ্রস্থ, নারী ও যৌতুক লোভী লোক। বর্তমানে সে আমাকে সমাজের কাছে হেয় করার জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে আমাকে নিয়ে ও আমার পরিবারের সদস্যদেরকে নিয়ে বিভিন্ন কুরুচি পূর্ণ মন্তব্য করে আসছে। তাই আমি সাংবাদিকদের মাধ্যমে সাবেক স্বামী মো. ইসলাম গাজীর নির্যাতনের হাত থেকে বাঁচতে ও স্বাভাবিক জীবন যাপন করতে প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করছি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ