রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ০১:১৮ পূর্বাহ্ন

লক্ষ্মীপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে ৫টি দোকানঘর ভাংচুর, আহত-৩

রিপোটারের নাম / ১৪০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২

স্টাফ রিপোর্টার: লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার শাকচর ইউনিয়নে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে ৫টি দোকানঘর ভাংচুরের ঘটনা ঘটে। গত ১৯ সেপ্টেম্বর ভোর রাতে ফারুক হোসেন দুলাল সঙ্গবদ্ধভাবে এসে এ ভাংচুর চালায়। এতে দোকানের মালিক সরকারী এআই টেকনেশিয়ান মোঃ মোঃ আনোয়ার হোসেনের ১৭লাখ টাকার মতো ক্ষতি হয় বলে জানা যায়। ভাংচুরে বাধা প্রদান করলে দুলাল ও তার লোকজনের হামলায় আহত হয় আনোয়ারের জেঠাতো ভাই মোরশেদ আলম, ভাতিজা স্বাধীন হোসেন ও ফয়সাল।
এ ঘটনায় লক্ষ্মীপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।
মামলার আলোকে জানা যায় , শাকচর ইউনিয়নের হাজী নজির আহাম্মদ মেম্বার বাড়ির মৃত জামাল উদ্দিনের ছেলে মোঃ আনোয়ার হোসেন কাদিরার গোজা বাজারের পূর্ব পাশে ৪২জমি ক্রয়সূত্রে মালিক। একই জমির মালিকানা দাবি করেন ঐ এলাকার মৃত আব্দুল মতিনের ছেলে ফারুক হোসেন দুলাল। জমির মালিকানা দাবি করে আদালতে মিস মামলাও দায়ের করেন দুলাল। কিন্তু তহসিলদার সার্বিক কাগজপত্র ও দাখিলিক প্রামানাদি পর্যালোচনা করে আদালতে আনোয়ার হোসেনের পক্ষে রিপোর্ট প্রদান করায় কৌশলে ঐ মামলা প্রত্যাহার করে নেয় দুলাল। সম্প্রতি ঐ জমিতে ৫টি দোকানঘর নির্মান করে মোঃ আনোয়ার হোসেন। এতে আরো ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে দুলাল। গত ১৯ সেপ্টেম্বর ভোর ৫টার দিকে দুলাল লোকজন নিয়ে এসে ঐ দোকানঘর ভাঙচুর করে। গাড়িতে করে দোকানের মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। বাধা দিলে তাদের হামলায় মোরশেদ আলম, স্বাধীন ও ফয়সাল আহত হয়। পরে খবর পেয়ে পুলিশ আসলে তারা পালিয়ে যায়। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানেও ভুক্তভোগিদের উপর হামলা চালায় তারা। এ ঘটনায় লক্ষ্মীপুর সদর থানায় ১৫জনের নাম উল্লেখ করে ও আরো অজ্ঞাত ৫০/৬০জন উল্লেখ করে মামলা দায়ের করা হয়।
মামলায় ফারুক হোসেন দুলাল সহ কামাল উদ্দিন, এমরান ও মন্নানকে আটক দেখিয়ে আদালতে প্রেরণ করা হয়।
এ ঘটনায় সুষ্ঠু বিচার দাবি করে ভুক্তভোগি আনোয়ার হোসেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ